Categories
হাতে কলমে মধুর ব্যবসা
রিভিউ এন্ড এক্সপ্লোর
(গত পর্বের পর) প্রথম অর্ডার পেয়ে ডেলিভারি দেয়ার আগে একটা জার বা বোতলের ছবি তুলে একটা পোস্ট করুন এমন টাইপের কিছু – ” প্রথম অর্ডার কনফার্ম বন্ধু “XYZ Khan” কে আস্থা রাখার জন্য ধন্যবাদ।” ব্যস। এবার আপনার বন্ধু প্রোডাক্ট হাতে পেলে খাওয়ার পর একটা রিভিউ চান এবং রিভিউ অবশ্যই আপনার টাইমলাইনেও শেয়ার করুন। হয়ত পোস্টে প্রথমদিকে কোন রকম কমেন্টস বা রিয়্যাকশান পাবেন না। তবে হতাশ হওয়া কোন কারণ নেই। এভাবে আপনার আরও কিছু বন্ধুকে টার্গেট করে ক্রেতা বানান ও একই ভাবে পোস্ট এক্টিভিটি রাখুন।
এরপর ডিরেক্ট সাকসেস ও সেল পোস্টের বাইরে ভিন্ন কিছু চিন্তা করুন। যেমন কোন ক্রেতার সাথে মজার কোন কনভার্সেশন বা মধুর সাথে আপনার কোন অভিজ্ঞতা, নতুন কোন মধু আসলে সেটা সম্পর্কে জানান ইত্যাদি।
এবার আপনার পরিচিত এমন একজনকে খুঁজে বের করুন যার পোস্টে বেশি লাইক কমেন্ট পরে বা হাল্কা সেলিব্রিটি টাইপের। বৃহৎ সেলিব্রিটি লাগবে ব্যাপারটা
কিন্তু মোটেই এমন নয়। ২-৩ শ লাইক কমেন্ট পরে এমন ভাল পার্সোনালিটির একজনই এনাফ। এটা আপনার ক্ষেত্রে ভিন্ন ভিন্ন রকম হতে পারে। যেমন ধরুন আপনি এলাকার এমন কোন বড়ভাইকে চিনেন যাকে অনেকে ফলো করে। সহজ কথায় এমন কেউ যে আপনার নেটওয়ার্কে অনুসরণীয়। তাকে সিম্পলি ৫০০ গ্রাম মধু গিফট করুন। এবং খাওয়ার পর তার রিভিউ জানাতে বলুন। ব্যস এটাও নিয়ে আপনার টাইমলাইনে গুছিয়ে পোস্ট করুন। মনে রাখবেন সেলিব্রিটি বাইনডিং আপনার পুরো ব্যবসার মোড় ঘুরিয়ে দিতে পারে।
রিভিউ কেন জরুরী?
মূলত আপনি যখন ব্যবসায়ী হিসেবে নিজেকে প্রকাশ করবেন আপনার পোস্ট যত মানুষই দেখুক তাদের ভাবনা থাকব- ‘উনি তো ব্যবসায়ী, সবাই তার প্রডাক্টকে ভাল বলবেই।’ এভাবে সাধারণ মার্কেটিং গুলো পাত্তা দেয় না মানুষ। আরও সেটা যদি হয় মধুর মত পণ্য যাতে বিশ্বাস ও আস্থাও মিশ্রিত, তখন সেটা আরও কঠিন।
এই পয়েন্টে আসুন অন্যভাবে ভাবি, ধরুণ আপনি একজন ব্যবসায়ী না, আপনি আপনার কোন বিশ্বস্ত সোর্চ থেকে মধু কিনছেন। কেনার পর একটা সুন্দর রিভিউ দিলেন। তখন কিন্তু আপনার বন্ধুরা সেটা সহজে নিবে। আরও সহজে বললে আপনার কাছের বন্ধু যদি বলে দোস্ত এই মোবাইল বেশ ভাল আমি নিজে ব্যবহার করছি, এটা আপনার কাছে যতটা গুরুত্বের হবে অন্য ব্রান্ডের মার্কেটার যদি তার মোবাইলের হাজারটা ফিচার বোঝায় সেটা ততটাই গুরুত্বহীণ হবে।
এজন্য একটি বা কয়েকটি ভাল রিভিউ আপনার পুরো ব্যবসাকে অন্য লেভেলে নিয়ে যাবে। তাই কাস্টমার রিভিউয়ের ব্যপারে পূর্ণ সতর্ক থাকা জরুরী। তবে এর মানে এই নয় যে কাস্টমারকে প্রোডাক্ট দিয়ে ফোর্স করা শুরু করবেন রিভিয়ের জন্য! এতে কিন্তু বিপরীত হতে পারে। আপনি সিম্পলি অনুরোধ করতে পারেন, একবার বা আরেকবার স্বরণ করাতে পারেণ ব্যস! এর বেশি ভুলেও না। নইলে আপনি রিটার্ন কাস্টমার হারাবেন যা আপনার ব্যবসা কন্টিনিউ করতে সবচে বেশি ভুমিকা রাখে। রিটার্ন কাস্টমার নিয়ে অন্য একটি পর্বে আলোচনা করব।
যাইহোক, প্রথমদিকে কয়েকটি সেলের পর চেষ্টা করবেন প্রতিদিন কিছু না কিছু পোস্ট করা মধু সম্পর্কে। এর মাধ্যমে আপনার ফ্রেন্ডলিস্টে বা আপনার নেটওয়ার্কে কেউ মধুর কথা চিন্তা করলে সিম্পলি আপনাকে নক দিবে।
এখন কিছু গ্রুপ খুঁজুন যেখানে গুছিয়ে সেল পোস্ট করা যায়। যেমনঃ
এধরনের আরও কিছু গ্রুপ খুঁজুন ও নিয়মিত সেল পোস্ট করার চেষ্টা করুন। কিভাবে পোস্ট করতে হবে তার কিছু ব্যাসিক ব্যাপার বলি, সরাসরি ক্রেতাকে কেনার অনুরোধ একেবারে লো লেভেলের মার্কেটিং।
তাহলে কেমন হতে পারে পোস্ট গুলো –
” করোনার এই দুঃসময় মানুষ ঔষুধের থেকে বেশি ঝুকছে কিভাবে প্রকৃতিক ভাবে নিজের ভিতর রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানো যায়। আর এক্ষেত্রে এক ও অদ্বিতীয় হচ্ছে মধু।”
এরপর মধুর কিছু গুণাগুণ বর্ণনার পর “আমি XYZ খাঁটি মধু নিয়ে কাজ করছি। আমার কাছে এই মুহুর্তে সুন্দরবন ও কালোজিরার বেস্ট মধু রয়েছে।”
ব্যাস এভাবে আরও বাড়িয়ে কমিয়ে নিজের মত করে পোস্ট করতে থাকুন। ডিরেক্ট পোস্টে বলার দরকার হবে না মধু কেনার জন্য। বিভিন্ন গ্রুপ গুলোতে নিয়মিত এক্টিভিটি আপনার রেগুলার সেল আনতে সক্ষম। তবে প্রথম কয়েকদিন কোন সেল নাও আসতে পারে, অতএব, একেবারেই হতাশ হওয়া যাবে না। আর হ্যাঁ যেখানে যখনই কোন সেল হবে। চেষ্টা করবেন রিভিউ নেয়ার। চলবে………

Leave a Reply

Calendar

মে 2022
সোম বুধ বৃহ. শু. শনি রবি
 1
2345678
9101112131415
16171819202122
23242526272829
3031  

বিভাগসমূহ

সাম্প্রতিক মন্তব্যসমূহ